বাংলাদেশের চেয়ে ভারতকে নিরাপদ মনে হলো মরগানের!

বাংলাদেশ সফরে ইংল্যান্ডের ওয়ানডে দলের অধিনায়ক হিসেবে খেলতে আসার কথা ছিল ইয়ান মরগানেরকিন্তু নিরাপত্তা অজুহাতে এখানে খেলতে আসেননি তিনিতার পরিবর্তে টাইগারদের বিপক্ষে একদিনের ম্যাচে অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করেন জস বাটলারভারপ্রাপ্ত এই অধিনায়কের অধীনে ওয়ানডে সিরিজটি ২-১ ব্যবধানে জিতেছে ইংল্যান্ড
বাংলাদেশের বিপক্ষে দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলার পর ভারত সফরে যাবে ইংল্যান্ডওই সফরে ইংলিশদের সীমিত ওভারে নেতৃত্ব দেবেন মরগারএটা নিশ্চিত বলাই চলেদলের সহকারী কোচ পল ফারব্রেসের কথাতে অনেকটা স্পষ্টএছাড়া মরগানও তো ভারত সফরে আসতে রাজিতার মানে, বাংলাদেশের চেয়ে ভারতকে নিরাপদ মনে হলো তার!
অথচ বাংলাদেশ সফরে আসার আগে ইংল্যান্ডের তারকা অলরাউন্ডার মঈন আলী বলেছিলেন, বিশ্বের এমন কোনো স্থান নেই, যাকে পূর্ণ নিরাপদ বলা যাবেএক দেশের দুই খেলোয়াড়ের চিন্তা দুই ধরনেরএটা অস্বাভাবিক নয়কারণ সাহসের জায়গাটাও তো ব্যক্তিভেদে ভিন্ন
গত ৩০ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশে পা রাখে ইংল্যান্ড দলএরপর থেকে কঠোর নিরাপত্তায় রয়েছে তারাইংল্যান্ডের খেলোয়াড় থেকে কোচ-স্টাফরা এদেশের নিরাপত্তা ব্যবস্থায় দারুণ খুশিতাদের চোখে, বাংলাদেশের নিরাপত্তা বিশ্বমানেরযদিও মরগানের কাছে তার শঙ্কাজনকই থাকলো
বাংলাদেশের প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারতওখনকার নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে ভালো মনে হওয়ায়ই তো আসতে চাচ্ছেন মরগারনাকি আইপিএলে টাকার অঙ্ক তার কাছে অনেক বড়? ওখানে খেলতে না আসলে টুর্নামেন্টটি থেকে ছিটকে পড়তে পারেননাকি টানা দুটি সফরে অনীহা প্রকাশ করলে ইংল্যান্ড দলে জায়গা হারাতে পারেন ‘ভিনদেশী’ আয়ারল্যান্ড বংশোদ্ভূত এই ক্রিকেটার? এসব প্রশ্নের অজানা উত্তরগুলো মরগানই অবশ্য ভালো জানেন
তথ্যসূত্রঃ জাগোনিউজ২৪

Leave a Reply